জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ই-বিজনেস ও এন্ট্রেপ্রেনিউরশিপ ক্লাব এর নতুন কমিটি গঠন

শেয়ার করুন

গত ৫-ই জানুয়ারি, ২০২০-এ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় এর একটি প্রসিদ্ধ সংস্থা, ই-বিজনেস ও এন্ট্রেপ্রেনিউরশিপ এর প্রথম বার্ষিক সম্মেলন হয়ে গেল, যেটির মূল উদ্দেশ্য ছিল উক্ত সংস্থাটির নব্য নিযুক্ত কমিটি উন্মোচন করা।

অনুষ্ঠানটির প্রধান অতিথি ছিলেন, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের আইআইটির পরিচালক, ড.এম. মেসবাহ উদ্দিন সরকার, গণিত বিভাগের অধ্যাপক ডঃ মোঃ শরীফ উদ্দিন এবং সরকার ও রাজনীতি বিভাগের অধ্যাপক জনাব মোঃ বশির আহমেদ।

প্রধান বক্তা ড. এম মেসবাহ উদ্দিন সরকার সমসাময়িক বিভিন্ন ঘটনাবলী তথা কিভাবে ই-বিজনেস এর প্রচার ও প্রসার সারা বিশ্বে দ্রুত গতিতে বৃদ্ধি পাচ্ছে, তা নিয়ে সংক্ষিপ্ত তথা কার্যকরী ও বিশ্লেষণধর্মী দৃষ্টিভংগির আলোকপাত করেন। এছাড়াও পরামর্শ দেন যে, প্রত্যেকেরই উচিৎ ৪র্থ প্রজন্মের বিবর্তন সম্পর্কে সঠিকভাবে অবগত হওয়া। অধ্যাপক ডঃ মোঃ শরীফ উদ্দিন ও তার উৎসাহমূলক বক্তৃতায় উপস্থিত শিক্ষার্থীদের উদ্ধুদ্ধ করেন যেন শিক্ষার্থীরা তাদের নিজ গুণাবলি ও দক্ষতা বিভিন্ন ক্ষেত্রে আরও বৃদ্ধি করতে পারে এবং নানা গুরুত্বপূর্ণ তথ্যাদি দিয়ে নিশ্চিত করেন কিভাবে যে কেউ একজন আদর্শ উদ্যোক্তা হতে পারে। এছাড়াও অধ্যাপক জনাব মোঃ বশির আহমেদ ক্লাবটির নিয়মিত কার্যক্রমের ব্যাপক প্রশংসা করেন।

সম্মেলনটিতে প্রধান অতিথিবৃন্দ ছাড়া আনুমানিক ৫০ জনের মত উপস্থিত ছিল,যাদের সবাই ই মূলত উক্ত ক্লাবটির প্রধান সদস্যবৃন্দ। ইইসি-জেইউ এর সাবেক সভাপতি এস.এম মুশফিকুল ইসলাম এবং সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাহরিয়ার আহমেদ যৌথভাবে নতুন কমিটির ঘোষণা করেন। সংগঠনটির সকল সাধারন সদস্যবৃন্দ আন্তরিকভাবে নতুন কমিটিকে গ্রহণ করে নিয়েছেন। নতুন সভাপতি, মুনিরা ফেরদৌস ক্লাবটির নতুন কর্মকান্ডের আভাস দিয়ে তার পদমর্যাদা গ্রহন করেন। কমিটির নব্য সাধারণ সম্পাদক হিসেবে তাবাসসুম নাহার খান লোরেন তার দায়িত্ব গ্রহণ করেন। এছাড়াও ইইসি-জেইউ নতুন  উপ সভাপতি হিসেবে তিলোত্তমা খান রাজিব এবং জান্নাতুল পুষ্পা কে নব্য কোষাধ্যক্ষ হিসেবে নিযুক্ত করা হয়েছে। বর্তমান সাধারন সম্পাদক তাবাসসুম নাহার খান লোরেন সংগঠনের সংবিধান পড়েন এবং এটিকে ২০২০ সেশনের জন্য ঘোষনা করেন। এছাড়াও ক্লাবটির নতুন সেক্রেটারি এবং অন্যান্য  নাম ঘোষনা করা হয়।

কমিটিতে নতুন পদপ্রাপ্তরা হলেন –

মুয়াম্মার শাহরিয়ার এইচ.আর সেক্রেটারি, পিন্টু গোয়ালাকে অর্গানাইজিং সেক্রেটারি, শাহরিয়ার ইসলাম হিমেলকে প্রোগ্রাম সেক্রেটারি, খাদিজাতুল কোবরা এবং ফারহানা চৌধুরীকে কমিউনিকেশন সেক্রেটারি, আফসানা আক্তারকে প্রমোশন সেক্রেটারি, নাফিউল আলমকে প্রেস,মিডিয়া ও ডকুমেন্টেশন সেক্রেটারি, আনোয়ারুল ইসলামকে অফিস সেক্রেটারি, জুল ইকরামকে আইটি সেক্রেটারি, আল শাহরিয়ারকে কর্পোরেট সেক্রেটারি, তায়েবা বাশারকে রিসার্চ এন্ড ডেভেলপমেন্ট সেক্রেটারি, কাশফিয়া শাওকিকে এডমিন সেক্রেটারি, তাসনীম তাইয়্যেবাহ জান্নাতকে স্কিল ডেভেলপমেন্ট সেক্রেটারি হিসেবে ঘোষনা করা হয়। নতুন এই কমিটিতে এক্সিকিউটিভ হিসেবে যোগ দিয়েছেন এ.কে. দিন মোহাম্মদ, ইসরাত শবনম, মাইনুল ইসলাম রাফসান, ইবতিদা জাহান, জুমাইয়া মাসিয়াত, নশীন নাওয়াল, সৌরভ রয়, মোঃ ইমদাদুল হক ইভান ও সিদ্ধার্থ।

সম্মেলনের শেষ পর্যায়ে, সংগঠনটির সাবেক সভাপতি এস.এম মুশফিকুল ইসলাম সংগঠনের সার্বিক মঙ্গল কামনা করে বিদায় বক্তব্য রাখেন এবং সকল সদস্যরা আশা রাখেন, ইইসি -জেইউ সাফল্যের নতুন দিক উন্মোচন করবে।

ইয়ুথ ভিলেজ/বিশেষ প্রতিবেদক/মুনিরা ফেরদৌস

আলোচনা করুন

avatar
  Subscribe  
Notify of